০৪ ডিসেম্বর ২০২১, শনিবার, ১০:৪৭:০১ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
আপনার খাদ্যাভ্যাসেই চুল হবে সুন্দর লটারি জিতে ভারতের সাংবাদিকদের সংসদে ঢুকতে হচ্ছে টেকনাফে সাড়ে সাত হাজার পিস ইয়াবাসহ রোহিঙ্গা আটক চাঁদাবাজির শীর্ষে ঢাকা সিটি মুগদা সবুজবাগ মিরপুর মোহাম্মদপুরসহ সবখানে বাড়ি করতে দিতে হয় সরকারি দলকে নগদ টাকা নির্মাণসামগ্রী কিনতে হয় তাদের কাছ থেকেই, নেতাদের অভিযোগ করে লাভ হয় না, ভাগ পান সবাই কর্মজীবী বাবা মায়ের শিশুর প্রতি যত্ন টেকনাফে র‍্যাবের অভিযানে ইয়াবাসহ আটক ১ ৩১ জানুয়ারির মধ্যে সব নির্বাচন শেষ করবে ইসি নাফনদীতে বিজিবির অভিযানে ৬০ হাজার ইয়াবাসহ আটক ১ মেয়র আব্বাসের বিরুদ্ধে ১০ দিনের রিমান্ড চায় পুলিশ করোনা আরও ৩ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ২৬১


নার্সিং উদ্দোক্তাবান্ধব সংগঠন সম্পর্কিত মতবিনিময় সভা
রিপোর্টারঃ মাহমুদুল হাসান জসিম
  • আপডেট করা হয়েছে : ২৬-১০-২০২১
নার্সিং উদ্দোক্তাবান্ধব সংগঠন সম্পর্কিত মতবিনিময় সভা




বাংলাদেশ প্রাইভেট নার্সিং কলেজ ওনার্স অ্যাসোসিয়েশনের সম্মানিত বিভাগীয় সভাপতি ও সাধারন সম্পাদক সহ সকল সদস্য বা নার্সিং উদ্দোক্তাদের নিয়ে নতুন কমিটি গঠনের লক্ষ্যে বেসরকারি নার্সিং কলেজ উদ্যোক্তা রাসেল আহাম্মেদ প্রিন্স এর নেতৃতে এডভোকেট মোঃ জাকির হোসেনের আয়োজনে সকল নার্সিং উদ্যোক্তাদের নিয়ে মত-বিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। রাজধানীর ঢাকার বিজয় নগর পানির টেংকির বিপরীত পাশে চুং ওয়া রেষ্টুরেন্টের কক্ষে আজ মঙ্গলবার সকাল ১১ ঘটিকায় নার্সিং উদ্দোক্তা রাসেল আহাম্মেদ প্রিন্স সভপতিত্বে ও নাসিং উদ্দোক্তা জাকির হোসেনের এর পরিচালনায় উক্ত সভার আয়োজন করা হয়। এসময় উপস্থিত ছিলেন নার্সিং উদ্দোক্তা ডা: শামিম আহমেদ , নার্সিং উদোক্তা তানজিনা খান , ইকবাল, রেখা ,খাদিজা আক্তার, জুমুর, শাহনা আক্তার, কাকুলী রানী পাল, সবিতা, কামরুজ্জামান, আবুল কালাম আজাদ, মীর আফসার উদ্দিন প্রমূখ। দীর্ঘ দিন থেকে নার্সিং সেক্টরে দূর্নিতি ও অনিয়ম থাকায় পুরাতন কমিটির সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদককে অনাস্থা প্রস্তাবের মাধ্যমে অপসারণ করে নতুন কমিটি গঠনের উদ্যোগ নেওয়া হয়। এসময় বিভিন্ন জেলা থেকে আসা নার্সিং ইনস্টিটিউট ও কলেজের উদ্দোক্তা তাদের নিজ নিজ বক্তব্য উপস্থাপন করেন। পূর্বের কমিটির দূর্নিতি ও অভিযোগ থাকায় বিভিন্ন জেলার উদ্দোক্তাদের মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়। এসময় প্রিন্স রাসেল জানান,এই কমিটির মাধ্যমে নার্সিং কর্মকর্তারা সেবামূলক পেশায় আরও গতিশীল ভূমিকা রাখতে পারবেন। উন্নত সেবা প্রদানে নার্সিং উদ্যোক্তাদের মধ্যে সমন্বয় সৃষ্টিসহ সব ধরনের দায়িত্ব, কর্তব্য যথাযত সম্পাদিত হবে। এ জন্য কমিটি গঠনে সকলের আন্তরিক প্রচেষ্ঠা ও সহযোগীতা কামনা একান্ত প্রয়োজন বলে বক্তরা মনে করেন। এডভোকেট জাকির উদ্দিন জানান, ‘নার্সিং একটি সম্মানিত ও মহৎ পেশা। নার্সদের বুকের ভেতরে যত কষ্ট থাকুক, হাসি মুখে রোগীদের সেবা দিতে হবে। নিজ হাতে ওষুধ খাওয়াতে হবে এবং রোগীরা কেমন আছেন, সে বিষয়ে খোঁজ-খবর নিতে হবে।’

শেয়ার করুন